করোনা টিকা নেওয়ার পর কতদিন থাকবে টিকার প্রভাব?

0
56

বিশ্বের কয়েক কোটি মানুষ ইতিমধ্যে করোনার টিকা নিয়েছেন। এখনো প্রতিদিন লাইন দিয়ে করোনার  টিকা নিচ্ছেন বহু মানুষ। সকলেই জানেন, টিকা আজীবন কোভিড-১৯ এড়ানোর গ্যারান্টি দেয় না, তবে কিছু সময়ের জন্য সংক্রমণের বিরুদ্ধে লড়াই করা যায়।

আজকাল মানুষের মনে প্রশ্ন দেখা দিয়েছে যে, টিকা নেওয়ার পর কতদিন শরীরে এর প্রভাব থাকবে? অথবা যিনি টিকা নিয়েছেন, তার শরীরে প্রতিরোধ ক্ষমতা কত দিন পর্যন্ত থাকবে? সম্প্রতি, কিছু বিজ্ঞানী এই বিষয়টি নিয়ে গবেষণা করেছেন। যেখানে জানা গেছে টিকা নিলে মানুষের শরীরে সংক্রমণ প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধি পায়।

বিশেষজ্ঞদের বরাত দিয়ে মার্কিন সংবাদমাধ্যম লস অ্যাঞ্জেলেস টাইমের খবরে বলা হয়, যে সমস্ত লোকেরা করোনায় সংক্রমিত হয়েছেন তাদের টিকার ডোজ নেওয়ার পর কোভিড-১৯ এর সঙ্গে লড়াই করার ক্ষমতা বৃদ্ধি পায়। এবং পুনরায় সংক্রমণের ঝুঁকি অনেকাংশে হ্রাস করে। অতএব, এই টিকার দুটি ডোজ শরীরে অনাক্রম্যতা বিকাশের জন্য প্রয়োজনীয় বলে তারা মনে করেন।

গবেষণায় দেখা গেছে যে ফাইজার-বায়োএনটেক এবং মডার্নার টিকাগুলি সংক্রমণ প্রতিরোধে ৮০% পর্যন্ত কার্যকর। এরপর যখন দ্বিতীয় ডোজ দেওয়া হয় তখন এর প্রভাব ৯০% হয়ে যায়। একই সময়ে, ভারতের সেরাম ইনস্টিটিউট থেকে কোভিশিল্ডের উপরও গবেষণা করা হয়। সেখানে দেখা যায় যাদের কোভিশিল্ড দেওয়া হয়েছে তাদের প্রতিরোধ ক্ষমতা ৯০% পর্যন্ত কার্যকর হয়েছে।

ফাইজার-বায়োএনটেক ভ্যাকসিনের তৃতীয় পর্যায়ের গবেষণায় বিজ্ঞানীরা আবিষ্কার করেছেন যে, ছয় মাস পর্যন্ত মারণ ভাইরাস থেকে মানুষকে রক্ষা করতে পারে এই টিকা। আবার কিছু টিকার প্রভাব ছয় মাস থেকে এক বছর ধরে স্থায়ী হয় বলে জানিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা। CDC-র ভ্যাকসিন কোভিড-১৯ এর বিরুদ্ধে সুরক্ষার জন্য টিকা ১০০% পর্যন্ত কার্যকর বলে জানিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা। তাই দেরি না করে মন থেকে দ্বিধা দ্বন্দ্ব সরিয়ে সবাইকেই টিকা নেওয়ার পরামর্শ দিচ্ছেন বিশেষজ্ঞরা।